মঙ্গলবার, ১ ডিসেম্বার ২০২০   Tuesday, 1 December 2020.  



 লাইফস্টাইল


আমাদের প্রতিদিন

 Mar-03-2020 06:01:18 PM


 

No image


আমাদের ডেস্ক:

রান্নার স্বাদ আর গন্ধ বাড়াতে ঘিয়ের ব্যবহার সেই আদিকাল থেকেই। ঘিয়ে রয়েছে ভিটামিন, ফ্যাটি অ্যাসিড, ভালো কোলেস্টেরল এবং অ্যান্টিঅক্সিডেন্টস। এছাড়াও ঘি স্বাস্থ্যকর ও পুষ্টিকর।

জানেন কি? ঘি আপনার শরীরের পাশাপাশি ত্বক ও চুলের জন্যও বেশ জরুরি। ত্বকে ঘিয়ের ব্যবহার আপনার তারুণ্য ধরে রাখবে। এছাড়াও ঘি ত্বককে নরম করে তোলে। আর শুষ্ক ত্বকের জন্য ঘি অভাবনীয় ফলাফল দেয়।

অবাক হচ্ছেন নিশ্চয়? ঘি কীভাবে ত্বকে ব্যবহার করবেন। অনেকের ধারণা ঘি ত্বকে ব্যবহার করা যায় না। চুলে ঘি ব্যবহার করলে চুল তাড়াতাড়ি পেকে যায়। মনে রাখবেন এসব ধারণা পুরোপুরি ভুল। জেনে নিন কীভাবে ঘি ব্যবহার করবেন-

> ময়েশ্চারাইজার হিসেবে ঘি ত্বকে লাগাতে পারেন। হাতে কিছুটা ঘি নিয়ে নিন। এবার এটি আপনার পুরো ত্বকে চার মিনিট ম্যাসাজ করুন। এরপর কুসুম গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এটি আপনার ত্বক নরম ও মসৃণ করতে সাহায্য করবে। এছাড়াও ত্বকের দাগ কমাবে খুব দ্রুত।

> ঠোঁট ফাটা রোধ করতে পারে ঘি। রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে ঠোঁটে কিছুটা ঘি লাগিয়ে রাখুন। সকালে ধুয়ে ফেলুন।

> যাদের ডার্ক সার্কেল রয়েছে তাদের জন্য ঘি জাদুর মতো ফলাফল দেবে। হাতে সামান্য ঘি নিয়ে চোখের চারপাশে লাগিয়ে রাখুন ১৫ মিনিট। এরপর সুতি কাপড় দিয়ে মুছে নিন। এভাবেই সারা রাত রেখে পরদিন ধুয়ে ফেলুন। 

> রুক্ষ ও শুষ্ক চুলের জন্য ঘি দুর্দান্ত সমাধান। পরিমাণ মতো নারকেল তেলের সঙ্গে সমপরিমাণ ঘি মিশিয়ে গরম করে নিন। এটি পুরো চুলে ভালোভাবে লাগিয়ে ২০ মিনিট অপেক্ষা করুন। এরপর আপনার পছন্দের শ্যাম্পু কন্ডিশনার দিয়ে ধুয়ে নিন। এটি আপনার চুলকে রাতারাতি করবে স্বাস্থ্যজ্জ্বল, মসৃণ ও সুন্দর।

সূত্র: হেলথশটস



আজকের রংপুর


No image
No image
No image
No image
No image
No image
No image
No image
No image
No image
No image
No image






 

 

 

 

 

 
সম্পাদক ও প্রকাশক
মাহবুব রহমান
ইমেইল: mahabubt2003@yahoo.com