মঙ্গলবার, ২৯ সেপ্টেম্বার ২০২০   Tuesday, 29 September 2020.  



 প্রধান শিরোনাম


আমাদের প্রতিদিন
Feb-13-2020 08:49:39 PM
 

No image


হারুন-উর-রশীদ সোহেল:

আহা কী আনন্দ আকাশে বাতাসে। বসন্তের আগমনের একদিন আগেই রংপুরে হয়ে গেল যেন বসন্ত উৎসব। যেন আকাশ বাতাস ছাড়িয়ে সে উৎসবে ঢেকে যায় নগরীর রাজপথ, অলিগলি ও পাড়ামহল্লা। এই উৎসবের নগরীতে যে দিকে চোখ যায় শুধু দৃষ্টির সীমানায় ভেসে ওঠে কারো হাতে ফুলের তোড়া, চোখে মুখে আনন্দের বার্তা, কেউবা রয়েল বেঙ্গল টাইগার সাজে, সর্বত্র সাজ রব রব, ব্যানার-ফেস্টুৃন-প্ল্যাকার্ড ঝলমলে আনন্দের উচ্ছ¡াসে মাতোয়ারা রংপুর। এর সবটাই উৎসর্গ করল রংপুরবাসী বিশ্বকাপজয়ী যুব ক্রিকেট দলের অধিনায়ক আকবর আলীর জন্য।

আজ বৃহস্পতিবার রংপুরবাসী ক্রিকেট দুনিয়ায় নতুন ইতিহাসের বরপুত্র  আকবর আলীকে বিরোচীন সংবর্ধনা দিতে এমন জমকালো আয়োজন করে। হাজার হাজার আকবর আলী ভক্তদের স্বতঃস্ফুর্ত অংশ গ্রহণের মধ্য দিয়ে সংবর্ধনা অনুষ্ঠান জনসমুদ্রে রুপান্তরিত হয়। এ যেন আনন্দের বন্যায় ভেসে যাওয়া অনন্য উৎসব।  বেলা ১২টায় আকবর আলী আজ বৃহস্পতিবার দুুপুরে ঢাকা থেকে সৈয়দপুর বিমানবন্দরে আসেন। বিমান থেকে অবতণের পর পরই রংপুর সিটি মেয়র, জেলা প্রশাসন, জেলা পুলিশ ও ক্রীড়া সংস্থা, জাতীয় পার্টি আওয়ামীলীগসহ বিভিন্ন সংগঠন ও প্রতিষ্ঠানের সুধীজন ফুলেল শুভেচ্ছা জানান। এসময় আকবর ভক্ত-সমর্থদের উচ্ছাস রুখতে পুলিশ ও স্বেচ্ছাসেবকরা হিমশিম খেতে হয়। আকবর আলীকে রংপুর মহানগর জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক এসএম ইয়াসির গাড়িতে তুলে নেন। এসময় সিটি মেয়র মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফাও একই গাড়িতে ওঠেন। শুরু হয় বর্ণিল শোভাযাত্রা। পরে সেখান থেকে তাকে কার, মাইক্রো, মোটর সাইকেলের বিশাল বহরে করে রংপুরে নেওয়া হয়। আকবরকে বহনকারি গাড়ি বহর শুভেচ্ছা ¯েøাগানে পুরো নগরী প্রকম্পিত করে রংপুর পাবলিক লাইব্রেরি মাঠে পৌঁছান। সেখানে রংপুর জেলা প্রশাসন ও ক্রীড়া সংস্থার পক্ষ থেকে দেয়া হয় সংবর্ধনা। এসময় উপস্থিত ছিলেন রংপুর জেলা প্রশাসক আসিব আহসান, সিটি মেয়র মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এ্যাড. সাফিয়া খানম, রংপুর মেট্রোপলিন পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার আবু সুফিয়ান, রংপুর জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবু মারুফ হোসেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ফজলে এলাহী, জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মমতাজ উদ্দিন আহমেদ, জেলা ও বিভাগীয় ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক এ্যাড.আনোয়ারুল ইসলাম, মহানগর আওয়ামীলীগের সভাপতি সাফিয়ার রহমান সাফি, সাধারণ সম্পাদক তুষার কান্তি মণ্ডলসহ জেলা প্রশাসন, ক্রীড়া সংস্থা, আওয়ামী লীগ ও জাতীয় পার্টিসহ এর অঙ্গ সহযোগী সংগঠন এবং বিভিন্ন সামাজিক-ক্রীড়া-সাংস্কৃতিক সংগঠনসহ বিভিন্ন শ্রেণিপেশার মানুষ তাকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান। পরে তাকে নিজ পাড়া ও বাড়িতে ঢোকার পথে নগরীর কৈলাস রঞ্জন স্কুল গেটের সামনে থেকে ফুলেল বিছানো গালিচায় ফুলে ফুলে সিক্ত করে মা-বাবার কোলে পৌছে দেয়া হয়।

এদিকে আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে রংপুর সিটি কর্পোরেশন ও  পশ্চিম জুম্মাপাড়া এলাকাবাসীর আয়োজনে দেয়া হয়েছে সংবর্ধনা। সংবর্ধনাকে ঘিরে আতশবাজি, মিউজিক্যাল সাউন্ড শো, আর লাল সবুজের পতাকায় পশ্চিম জুম্মাপাড়া হয়ে উঠেছে বর্ণিল। সেখানে একটি নাম উচ্চারিত হচ্ছে ‘আকবর দ্য গ্রেট’। তাই সকাল থেকেই আকবরের বাড়ির সামনেই ক্রিকেট ভক্তসহ সর্বস্তরের মানুষের ছিল ভিড়।

জানা গেছে, আকবর আলী শুরুতে মাদরাসায় ভর্তি হলেও পরে বাড়ির পাশের জুম্মাপড়া বেগম রোকেয়া উচ্চ বিদ্যালয়ে ৫ম শ্রেণি পর্যন্ত লেখাপড়া করে নগরীর লায়ন্স স্কুল অ্যান্ড কলেজে ভর্তি হন। ক্লাস সিক্সে উঠে রংপুরের অসীম মেমোরিয়াল ক্রিকেট একাডেমিতে ভর্তি হন। সেখানে কোচ অঞ্জন সরকারের হাত ধরে রংপুর জিলা স্কুলের মাঠে তার ক্রিকেটের সত্যিকারের হাতেখড়িটাও হয়ে যায়। ২০১২ সালে বিকেএসপিতে সুযোগ পান। এরপর শুধুই এগিয়ে যাওয়ার গল্প তৈরি করে আকবর। বিকেএসপির বয়সভিত্তিক দলে খেলে সুযোগ পেয়ে যান জাতীয় অনূর্ধ্ব-১৭ দলে। নেতৃত্ব দেওয়ার অভিজ্ঞতাও হতে থাকে সমানতালে।

শুধু ক্রিকেট নিয়েই অবশ্য পড়ে থাকেননি আকবর। পড়াশোনাটাও দারুণভাবে করেছেন তিনি। ২০১৬ সালে তার এসএসসি পরীক্ষার সময় চলছিল প্রথম বিভাগ ক্রিকেট লিগ। তখন খেলা ও লেখাপড়া দুটিই সামলেছেন দারুণ মনোযোগে। এসএসসিতে জিপিএ-৫ পান তিনি। এইচএসসিতে জিপিএ ৪.৪২।

সবকিছুতে ভালো করার ধারাবাহিকতায় এবার বাংলাদেশ যুবদলের নেতৃত্বের ভার তার কাঁধে। দক্ষিণ আফ্রিকার আইসিসি অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে নেতৃত্বের ভার সামলে চমক দেখালেন আকবর আলী।

রংপুরবাসীর কাছে ঋণী:

বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ ক্রিকেট দলের বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক রংপুরের সন্তান আকবর আলী বলেছেন, বিশ্বকাপ জয়ের অর্জন ধরে আরো অনেক দূরে এগিয়ে যেতে চাই। আপনারা বাংলাদেশ টিমকে যেভাবে সাপোর্ট করে আসছেন, এই সাপোর্ট আগামীতে ধরে রাখবেন। আমাদের জন্য অনেক দোয়া করবেন। আমাদের এই অর্জন যেন শেষ না হয়ে যায়। আমরা আরো সাফল্য চাই। যেন অনেক দূর এগিয়ে যেতে পারি। দেশের জন্য কিছু করতে চাই।  তিনি আরও বলেন, আপনারা আমার জন্য অনেক মূল্যবান সময় নষ্ট করে এসেছেন। আমি আপনাদের ভালোবাসার কাছে কৃতজ্ঞ। আমি আপনাদের রংপুরবাসীর কাছে ঋণী হয়ে গেছি।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে রংপুর পাবলিক লাইব্রেরি মাঠে জেলা প্রশাসন ও জেলা ক্রীড়া সংস্থার আয়োজনে গণ সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন তিনি। 



আজকের রংপুর


No image
No image
No image
No image
No image
No image
No image
No image
No image
No image
No image
No image






 

 

 

 

 

 
সম্পাদক ও প্রকাশক
মাহবুব রহমান
ইমেইল: mahabubt2003@yahoo.com