নারিকেল গাছ পরিষ্কার করেই চলছে বিরু বর্মনের সংসার

আমাদের প্রতিদিন
2024-07-21 22:02:55

সুন্দরগঞ্জ(গাইবান্ধা)প্রতিনিধি:

গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার তারাপুর চাচীয়া মীরগঞ্জ গ্ৰামের বিরু বর্মন। ৪০ বছর ধরে নারিকেল গাছ পরিষ্কার করে চার ছেলে মেয়ে সহ ছয়জনের সংসার চালাচ্ছেন। দুই মেয়েকে দিয়েছেন বিয়ে।একটি জরাজীর্ণ ভাঙাচোরা খুপরি ঘরে কোন রকমের দিন কাটছে তাদের। তবুও অন্যের সাহায্যের অপেক্ষা করেন না। নেই কোন অভিযোগ ও। জানা যায়,বিরু বর্মন জীবনের শুরুতে দিনমজুরি শুরু করলেও বেশিদিন ধরে রাখতে পারেননি। ২০-২২ বছর বয়স থেকে শুরু করেন নারিকেল গাছে ওঠার কাজ। কখনো অন্যের গাছের নারিকেল পারা, আবার নারিকেল গাছ পরিষ্কার করাই হয়ে ওঠে তার পেশা। গত ৪০ বছর ধরেই করছেন নারিকেল গাছের আগাছা পরিষ্কার করার কাজ‌। একটি নারিকেল গাছে উঠে তিনি ৫০-১০০ টাকা উপার্জন করেন। কেউ আবার গাছপ্রতি দুই-একটা নারিকেল দেন। এগুলো বিক্রি করেই চলে তার সংসার।

বিরু বর্মন জানান, ২২-২৩ বছর বয়সে বিয়ে করেন। স্ত্রী-সন্তান নিয়ে কোনো রকমে দিন কেটে যেত। এই কাজ করেই দিয়েছি দুই মেয়েকে বিয়ে। তবে অর্থের অভাবে ছেলে মেয়েদের ভালো পড়ালেখা করাতে পারেননি। এখন বয়স হয়েছে আগের মতো আর গাছে উঠতে পারি না।

আজিম উদ্দিন বলেন,বিরু দাদা অনেক দিন থেকে এই কাজ করেন,গ্ৰামের নারিকেলের গাছের কাজ করেই চলে তার সংসার, বয়সের ভারে এখন আর তেমন কাজ করতে পারেন না, স্থানীয় সরকার বেষ্টনীর মাধ্যমে যদি সামাজিক সুরক্ষা দেয়, তাহলে হয়তো বাকিটা জীবন চলতে সুবিধা হবে। ইউপি সদস্য আমিনুল ইসলাম বলেন,সংসার চালানো তার জন্য খুব কষ্ট সাধ্য হয়ে পড়েছে,তার জন্য সরকারি ভাবে কিছু করা প্রয়োজন