১০ শ্রাবণ, ১৪৩১ - ২৬ জুলাই, ২০২৪ - 26 July, 2024
amader protidin

লালমনিরহাটে আওয়ামীলীগ নেতার অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ, সাংবাদিক লাঞ্চিত

আমাদের প্রতিদিন
3 weeks ago
43


লালমনিরহাট প্রতিনিধি:

সরকারী হাট-বাজারের জায়গা দখল করে অবৈধ স্থাপনা তৈরী করার অভিযোগ উঠেছে  লালমনিরহাটের আদিতমারী উপজেলার ভাদাই ইউনিয়নের এক আওয়ামীলীগ নেতার বিরুদ্ধে। অবৈধ স্থাপনা নির্মাণের ছবি তুলতে গিয়ে ওই নেতার হাতে লাঞ্চিত হয়েছেন দৈনিক ইত্তেফাকের সাংবাদিক সুলতান হোসেন। শুধু লাঞ্ছিত নয় ওই সাংবাদিককে দেখে নেয়ারও হুমকি দিয়েছেন আওয়ামীলীগ ওই নেতা।

বৃহস্পতিবার (৪ জুলাই) সকালে উপজেলা সদরের ভাদাই ইউনিয়নের বুড়িরহাটে এ ঘটনা ঘটেছে।

খবর পেয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) নূর—ই আলম সিদ্দিকী ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ অভিযান চালান। এ সময় উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) রওজাতুন জান্নাত ও থানা পুলিশ উপস্থিত ছিলেন।

জানাগেছে, লালমনিরহাটের আদিতমারী উপজেলা সদরের বুড়িরহাটে দীর্ঘদিন যাবত সরকারী জায়গা দখল করে একের পর এক স্থাপনা নির্মাণ করে কতিপয় লোকজন ব্যবসা করে আসছেন। আবার অনেক প্রভাবশালী ব্যক্তি সরকারী জায়গায় এসব দোকান ঘর নির্মাণ করে ভাড়া দিয়েছেন। আর এ সুযোগ কাজে লাগিয়ে  সরকারী জায়গা দখল করে অবৈধ স্থাপনা নির্মাণ করেন ভাদাই ইউনিয়নের আওয়ামীগের সাবেক সভাপতি ইলিয়াস আহমেদ বসুনিয়া। আর অবৈধ স্থাপনা নির্মানের ছবি তুলতে গিয়ে লাঞ্চিত হয়েছেন ইত্তেফাকের স্থানীয় সাংবাদিক সুলতান হোসেন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয় সুত্রে জানা গেছে, সরকারী নিয়ম অনুযায়ী হাটবাজারের জায়গায় কোনভাবেই স্থায়ী স্থাপনা তৈরি করা যাবে না। এসব হাট—বাজারে অস্থায়ী স্থাপনার মাধ্যমে ব্যবসা বাণিজ্য পরিচালনা করতে হবে। কিন্তু উপজেলা সদরের বুড়িরহাটবাজারের চিত্র উল্টো।

সরেজমিন উপজেলা সদরের বুড়িরহাট বাজার ঘুরে দেখাগেছে, রাস্তার দু'ধারে সরকারী জায়গায় দখল করে স্থায়ীভাবে স্থাপনা তৈরি করা হয়েছে। এসব স্থাপনার কারণে হাটবাজারের দিন ভীড় লেগেই থাকে। ফলে ভোগান্তিতে পরতে হয় সাধারন পথচারীদের। সেই সাথে এসব সরকারী জায়গা বিক্রির হিড়িক চলছে এখানে। শুধু রাস্তার দু'ধারে নয়,বাজারের ভিতরেও করা হয়েছে স্থায়ী স্থাপনা। আবার এসব স্থাপনা তৈরি করতে দোকানদারদের দিতে হয়েছে মোটা অংকের টাকা। সব মিলে সদরের বুড়িরহাটবাজারে চলছে একপ্রকার লুটপাট। যেন দেখার কেউ নেই।

বুড়িরহাট বাজারের একজন পান ব্যবসায়ী নাম প্রকাশ না করে বলেন, এখানে ব্যবসা করবেন কি? হাটবাজার ইজারা নেয়ার পর প্রতিবছর দোকান সরে দিয়ে অবৈধ সুবিধা হাসিল করেন ইজারাদার। তিনি আরো বলেন,আর নয় এবার আমরা ব্যবসায়ীরা ঐক্যবদ্ধ হয়েছি। নতুন করে আর কোন অস্থায়ী দোকান সরিয়ে দিতে পারবে না।

আওয়ামীগ নেতা ইলিয়াস আহমেদ বসুনিয়া ইত্তেফাকের সাংবাদিককে বলেন, কোন ছবি তোলা যাবে না। এখানে দেখতে পারছ না আমি ঘর তুলছি। এক পর্যায়ে তিনি এ প্রতিনিধিকে লাঞ্চিত করে হুমকি প্রদান করেন। এসময় তিনি আরো বলেন, কোন ক্ষমতা নেই আমার ঘর তোলা বন্ধ করে।

আদিতমারী বুড়িরহাট ইজারাদার লুৎফর রহমান মুকুলের সাথে মোবাইল ফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করেও কথা বলা সম্ভব হয়নি।

আদিতমারী উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) নূর ই আলম সিদ্দিকী জানান, সরকারী জায়গায় স্থায়ী স্থাপনা নির্মাণ করার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে ওই স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে। তিনি আরো বলেন, সরকারী জায়গায় কোনভাবেই স্থায়ী স্থাপনা করতে দেয়া হবে না।

সর্বশেষ

জনপ্রিয়