২৪ মাঘ, ১৪২৯ - ০৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ - 06 February, 2023
amader protidin

চীনে এক মাসে করোনায় ৬০ হাজার মানুষের মৃত্যু

আমাদের প্রতিদিন
3 weeks ago
30


আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

ব্যাপক বিক্ষোভের মুখে গত ডিসেম্বরে কঠোর ‘শূন্য কোভিড নীতি’ থেকে সরে আসে চীন। এর পর থেকে দেশটিতে করোনার সংক্রমণ ও মৃত্যুহার বাড়তে থাকে। এরই মধ্যে জানা গেল, এ সময় প্রায় ৬০ হাজার মানুষ করোনায় মারা গেছেন। খবর সিএনএনের।

শনিবার (১৪ জানুয়ারি) বেইজিংয়ে চীনের করোনা পরিস্থিতি নিয়ে সংবাদ সম্মেলন করেন চীনা ন্যাশনাল হেলথ কমিশনের (এনএইচসি) চিকিৎসাবিষয়ক বিভাগের প্রধান জিয়াও ইয়াহুই। তিনি বলেন, গত ৮ ডিসেম্বর থেকে ১২ জানুয়ারির মধ্যে চীনে ৫৯ হাজার ৯৩৮ জন মানুষ করোনা-সম্পর্কিত কারণে মারা যান। তাদের মধ্যে ৫ হাজার ৫০৩ জন করোনার কারণে শ্বাসযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে ও ৫৪ হাজার ৪৩৫ জন করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা যান।

এত দিন শ্বাসযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে যেসব মানুষ মারা যেতেন, শুধু তাদেরই করোনায় মৃত বলে গণনা করত চীন। আর চীনা সেন্টার ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশনের (সিডিসি) ওয়েবসাইটের তথ্য অনুযায়ী, গত ৮ ডিসেম্বর থেকে করোনায় মাত্র ৩৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। যদিও এ সময়ে দেশটিতে করোনার প্রাদুর্ভাব ব্যাপক হারে বেড়েছে।

এ ছাড়া চীন করোনা মহামারির প্রকোপ ‘কম দেখানোর’ চেষ্টা করছে বলে অভিযোগ করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ও যুক্তরাষ্ট্র। একই সঙ্গে করোনার সংক্রমণ নিয়ে আরও তথ্য দিতে বেইজিংকে অনুরোধ করেছেন বিশ্বের শীর্ষ স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা।

সংবাদ সম্মেলনে মেডিকেল অফিসার জিয়াও বলেন, জ্বর ও করোনাজনিত কারণে চীনে ক্লিনিকে যাওয়া ও হাসপাতালে ভর্তি সর্বোচ্চ স্তরে পৌঁছেছে।

এনএইচসির তথ্য অনুযায়ী, গত ২৩ ডিসেম্বর ২ দশমিক ৮৬ মিলিয়ন মানুষ জ্বরজনিত কারণে ক্লিনিকে গেছেন। এর পর থেকে দেশটিতে ক্লিনিকে যাওয়া মানুষের সংখ্যা কমতে থাকে। গত ১২ জানুয়ারি ৪ লাখ ৭৭ হাজার মানুষ ক্লিনিকে গেছেন।

এনএইচসি বলছে, করোনা আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তির সংখ্যাও সর্বোচ্চ স্তরে পৌঁছেছে। গত ৫ জানুয়ারি ১ দশমিক ৬৩ মিলিয়ন মানুষ হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। আর ১২ জানুয়ারি পর্যন্ত রোগীর সংখ্যা ১ দশমিক ২৭ মিলিয়ন।

সর্বশেষ

জনপ্রিয়