৬ জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ - ২১ মে, ২০২৪ - 21 May, 2024
amader protidin

গঙ্গাচড়ায় ১১৮টি ঈদগাহে পবিত্র ঈদুল ফিতরের জামাত অনুষ্ঠিত

আমাদের প্রতিদিন
1 month ago
140


গঙ্গাচড়া (রংপুর প্রতিনিধি):

রংপুরের গঙ্গাচড়ায় যথাযোগ্য মর্যাদা ও ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে

১১৮টি ঈদগাহে পবিত্র ঈদুল ফিতরের জামাত অনুষ্ঠিত হয়েছে। জামাত শেষে মুসল্লিরা কোলাকুলিতে মেতে উঠেন। ঈদগাহে জামাতে শরীক হতে পেরে এক বাড়তি আনন্দ ছিল ধর্মপ্রাণ মুসল্লীদের মনে। বৃহস্পতিবার  (১১ এপ্রিল) সকাল  সাড়ে নয়টায় গজঘণ্টা ইউনিয়নের হাবু সাতান্ন জামাত ঈদ গাহে নামাজ আদায় করেন রংপুর ১ আসনের সংসদ সদস্য আসাদুজ্জামান বাবলু ও

জাতীয় সংসদের সাবেক  বিরোধী দলীয় চিফ হুইপ মসিউর রহমান রাঙ্গা এমপি।

অপরদিকে সকাল সাড়ে আটটায় গঙ্গাচড়া কেন্দ্রীয় ঈদগাহে অনুষ্ঠিত জামাতে নামাজ আদায় করেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব  রুহুল আমিন, ইউএনও'র প্রতিনিধি উপজেলা সমাজসেবা অফিসার মোসাদ্দেকুর রহমান।

এবার উপজেলা জুড়ে ১১৮ টি ঈদগাহে ঈদ-উল ফিতরের নামাজ অনুষ্ঠিত হয়েছে। এর মধ্যে বেতগাড়ী ইউনিয়নে১১ টি, কোলকোন্দ ইউনিয়নে ১৫টি, বড়বিলে ১০টি,গঙ্গাচড়ায় ৮টি, লক্ষীটারীতে ৫টি, গজঘণ্টায় ৭টি, মর্নেয়ায় ১৩ টি, আলমবিদিতরে ২৭টি ও নোহালী ইউনিয়নে ২২টি ঈদগাহে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়। এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাহিদ তামান্না। মুসল্লিরা যাতে প্রতিটি ঈদগাহে সুষ্ঠুভাবে জামাতে নামাজ আদায় করতে পারেন সেজন্য নিরাপত্তা ব্যবস্থাসহ সব ধরণের প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়।রংপুরের গঙ্গাচড়ায় যথাযোগ্য মর্যাদা ও ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে

১১৮টি ঈদগাহে পবিত্র ঈদুল ফিতরের জামাত অনুষ্ঠিত হয়েছে। জামাত শেষে মুসল্লিরা কোলাকুলিতে মেতে উঠেন। ঈদগাহে জামাতে শরীক হতে পেরে এক বাড়তি আনন্দ ছিল ধর্মপ্রাণ মুসল্লীদের মনে। বৃহস্পতিবার  (১১ এপ্রিল) সকাল  সাড়ে নয়টায় গজঘণ্টা ইউনিয়নের হাবু সাতান্ন জামাত ঈদ গাহে নামাজ আদায় করেন রংপুর ১ আসনের সংসদ সদস্য আসাদুজ্জামান বাবলু ও

জাতীয় সংসদের সাবেক  বিরোধী দলীয় চিফ হুইপ মসিউর রহমান রাঙ্গা এমপি।

অপরদিকে সকাল সাড়ে আটটায় গঙ্গাচড়া কেন্দ্রীয় ঈদগাহে অনুষ্ঠিত জামাতে নামাজ আদায় করেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব  রুহুল আমিন, ইউএনও'র প্রতিনিধি উপজেলা সমাজসেবা অফিসার মোসাদ্দেকুর রহমান।

এবার উপজেলা জুড়ে ১১৮ টি ঈদগাহে ঈদ-উল ফিতরের নামাজ অনুষ্ঠিত হয়েছে। এর মধ্যে বেতগাড়ী ইউনিয়নে১১ টি, কোলকোন্দ ইউনিয়নে ১৫টি, বড়বিলে ১০টি,গঙ্গাচড়ায় ৮টি, লক্ষীটারীতে ৫টি, গজঘণ্টায় ৭টি, মর্নেয়ায় ১৩ টি, আলমবিদিতরে ২৭টি ও নোহালী ইউনিয়নে ২২টি ঈদগাহে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়। এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাহিদ তামান্না। মুসল্লিরা যাতে প্রতিটি ঈদগাহে সুষ্ঠুভাবে জামাতে নামাজ আদায় করতে পারেন সেজন্য নিরাপত্তা ব্যবস্থাসহ সব ধরণের প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়।

সর্বশেষ

জনপ্রিয়