১০ ফাল্গুন, ১৪৩০ - ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ - 22 February, 2024
amader protidin

বাড়ির কিনারে যমুনেশ্বরী নদীতে ডুবে কলেজ শিক্ষার্থীর মৃত্যু

আমাদের প্রতিদিন
1 month ago
132


আঞ্চলিক প্রতিনিধি:

বাড়ির পাশে নদীতে গোসল করতে নেমে তাহমিদ ইসলাম সৌমিক নামে একাদশ শ্রেণির এক শিক্ষার্থীর মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল নিখোঁজের দেড় ঘন্টা পর মরদেহ উদ্ধার করে। ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার(৪ জানুয়ারি) দুপুরে রংপুরের বদরগঞ্জ পৌরশহরের মুন্সিপাড়ায়। তাহমিদ ইসলাম সৌমিক রংপুর সরকারি কলেজের একাদশ বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী। সে বদরগঞ্জ কুতুবপুর ডিগ্রি কলেজের গণিত বিভাগের প্রভাষক আবু তাহের মিয়ার দ্বিতীয় সন্তান। তার অকাল মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে।

এলাকাবাসী ও স্বজনদের সুত্রে জানা যায়, কলেজ ছুটি হওয়ায় গত বুধবার রংপুর থেকে তাহমিদ নিজ বাড়িতে আসেন। বেলা ১২টার দিকে প্রতিবেশি এক ছোট বোনকে নিয়ে সে বাড়ির পাশে যমুনেশ্বরী নদীতে গোসল করতে নামে। নদীতে বেশি পানি না থাকলেও সাঁতার না জানায় গভীর গর্তের মধ্যে পড়ে সে হারিয়ে যায়। প্রথমে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধারের চেষ্টা চালায়। ব্যর্থ হয়ে  বদরগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসে খবর দেওয়া হয়। পরে রংপুর থেকে ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরী দল এসে দুপুর ২টার দিকে তাকে উদ্ধার করে। তার মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে। নিহতের চাচাতো ভাই তারেকুজ্জামান বাবু বলেন, ভোটের কারণে কলেজ ছুটি হওয়ায় সে বাড়িতে আসেন। তাহমিদ সাঁতার জানতো না। অল্প পানি মনে করে সে গোসল করতে নেমে নদীর গভীর খাদে পড়ে নিখোঁজ হয়। পরে ডুবুরী দল এসে তাকে মৃত্যৃ অবস্থায় উদ্ধার করে।

প্রতিবেশী ইসমাইল হোসেন বলেন,  নদীতে গোসল করার আগে তার মা দোলনা বেগম তার সঙ্গে নদীর পাড়ে যায়। ছেলেকে সাবধানে গোসল করতে বলে তিনি বাসায় চলে যান। এ ঘটনার কিছুক্ষন তিনি জানতে পান তাহিমিদ পানিতে পড়ে নিখোঁজ হয়েছে। তাহমিদ সাঁতার কাটতে পারতো না। সে ছিল অত্যন্ত মেধাবী ছাত্র। তার বড় ভাই পুলিশে চাকুরি করেন।

বদরগঞ্জ ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন  ইনচার্জ (লিডার) মিজানুর রহমান বলেন, ‘পানিতে ডুবে যাওয়ার খবর পাওয়ার বিষয়টি রংপুরের ডুবুরীদলকে জানানো হয়। পরে তাদের সহায়তায় যৌথ অভিযান চালিয়ে ঘটনার দুই ঘন্টা পর মৃত্যু অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে স্বজনদের কাছে মরদেহ হস্তান্তর করা হয়।

সর্বশেষ

জনপ্রিয়