১ বৈশাখ, ১৪৩১ - ১৫ এপ্রিল, ২০২৪ - 15 April, 2024
amader protidin

কাউনিয়ায় তরুন গ্রুপের সংঘর্ষ : এক কলেজ ছাত্র নিহত: তিনজন গ্রেফতার

আমাদের প্রতিদিন
10 months ago
156


কাউনিয়া(রংপুর)প্রতিনিধি:

রংপুরের কাউনিয়ায় ফুটবল খেলায় মাঠে বাকবিতন্ডাকে কেন্দ্র করে তরুন গ্রæপের সংঘর্ষে আশিকুর রহমান (১৮) নামে এক কলেজ ছাত্র নিহত হয়েছেন। শুক্রবার রাতে উপজেলার সদর বাসস্ট্যান্ড মোড় এলাকায় মকবুলের ফলে দোকানের সামনে রংপুর-কুড়িগ্রাম মহাসড়কে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। ময়নাতদন্ত শেষে শনিবার বিকেলে নিহত আশিকুর রহমানের মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করেছে পুলিশ।

নিহত আশিকুর রহমান উপজেলার বালাপাড়া ইউনিয়নের হরিশ্বর স্টেশন দলাপাড়া গ্রামের তফেল উদ্দিনের ছেলে এবং কাউনিয়া কলেজের একাদশ শ্রেনীর ছাত্র।

এ ঘটনায় শনিবার বিকেলে নিহত আশিকুরের মা আবেদা খাতুন বাদী হয়ে ৮ জনের নাম উল্লেখ কাউনিয়া থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। ৪ থেকে ৫ জনকে  অজ্ঞাত আসামী করা হয়েছে। 

ঘটনার পর পুলিশ অভিযান চালিয়ে তিনজনকে গ্রেফতার করেছে। গ্রেফতারকৃতরা হলো, উপজেরার বালাপাড়া ইউনিয়নের নিজপাড়া গ্রামের মৃত খায়রুল ইসলাম কালুর ছেলে আতিকুর রহমান (১৯),  সাহাবাজ গ্রামের নুরুল ইসলাম ছেলে আল মামুন (২১) ও গংগানারায়ন গ্রামের শাহ আলমের ছেলে রেজাউল হাসান রাহি (২১)।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, শুক্রবার (১৯ মে) বিকেলে উপজেলার কাউনিয়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে স্থানীয় কিছু তরুনরা ফুটবল খেলার আয়োজন করে। ফুটবল খেলা চলাকালে আতিকুর ও আশিকুরের মধ্যে বাকবিতন্ডা ঝগড়া হয়। খেলা শেষে আশিকুর বাড়ী চলে যায়। পরে সন্ধায় আশিকুর উপজেলার সদর বাসস্ট্যান্ড মোড় এলাকায় আসলে খেলার মাঠে বিতন্ডাকে কেন্দ্র করে আতিকুর ও আরো কয়েকজন কিশোর একত্রিত হয়ে দেশীও অস্ত্র দিয়ে তার উপর অতর্কিত ভাবে হামলা চালায়। হামলায় মাথায় রক্তজখম হয়ে আশিকুর রাস্তায় পড়ে যায়। স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। অবস্থার অবনতি হওয়ায় চিকিৎসক তাকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার্ড করে। রাত সাড়ে দশটার দিকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আশিকুর মারা যায়। হাসপাতালের চিকিৎসক জানায়, ধারালো কিংবা ভারী কোন কিছু দিয়ে আশিকুরের মাথায় আঘাত করা হয়েছে। আঘাতে অতিরিক্ত রক্ত ক্ষরণ হয়।

নিহতের মা আবেদা খাতুন বলেন, আমার ছেলেকে যারা ডেকে নিয়ে গিয়ে নৃর্শংসভাবে হত্যা করেছে। তার আমি দৃষ্ঠান্ত শাস্তি চাই। আর যেন কোন মায়ের বুক খালি না হয়।

কাউনিয়া থানার ভারপ্তপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোন্তাছের বিল্লাহ জানান, ফুটবল খেলায় বাকবিতন্ডাকে কেন্দ্র করে তরুন দুই গ্রæপের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে সেখানে পুলিশ পাঠানো হয়।

ওসি মোন্তাছের বিল্লাহ বলেন, সংঘর্ষে আশিকুর নামে এক কিশোর আহত হয়। রাতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আশিকুর মারা যায়। শনিবার ময়নাতদন্ত শেষে আশিকুরের মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। এ ঘটনায় শনিবার বিকেলে নিহত আশিকুরের মা আবেদা খাতুন বাদী হয়ে ৮ জন তরুনের নাম উল্লেখ সহ অজ্ঞাত ৪-৫ জনকে আসামী করে একটি হত্যা দায়ের করেছেন। ঘটনার সাথে জড়িত তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অন্যদের গ্রেফতারে মাঠে কাজ করছে পুলিশ।

 

 

 

সর্বশেষ

জনপ্রিয়